«

»

আমাদের টেকটুইটসের অন্যতম টপটুইটার অনির্বাচিত টুইটার ভাইয়ের জেলা লক্ষ্মীপুর। লক্ষ্মীপুর জেলাকে জানুন॥

ঈদ মোবারক।ঈদ মোবারক।ঈদ মোবারক।ঈদ মোবারক।সবাইকে ঈদের শুভেচ্ছা। এর আগে কুড়িগ্রাম ও ফরিদপুর জেলা নিয়ে “আমার বাংলা” বিভাগে টুইট করা হয়েছে। সেগুলো দেখতে আমার সকল পোস্ট দেখতে পারেন। বাংলাদেশের দক্ষিণ-পূর্বাঞ্চলে চট্টগ্রাম বিভাগের অন্তর্গত লক্ষ্মীপুর জেলার আয়তন ১৫৩৪.০৭বর্গ কিঃমিঃ।
এর উত্তরে চাঁদপুর জেলা, দক্ষিণে ভোলা ও নোয়াখালি, পূর্বে নোয়াখালি এবং পশ্চিমে বরিশাল, ভোলা ও মেঘনা নদী দ্বারা পরিবেষ্ঠিত।
লক্ষ্মীপুর শহর রহমতখালি নদীর তীরে অবস্থিত।
প্রধান নদীঃ মেঘনা, ডাকাতিয়া, কাটাখালি, রহমতখালি ও ভুলনা। ১৯৮৪ সালে লক্ষ্মীপুর একটি পূর্নাঙ্গ জেলা হিসেবে প্রতিষ্ঠিত হয়। ১৯৭১ এর মহান স্বাধীনতা যুদ্ধে এখানে পাক- হানাদার বাহিনী ও মুক্তিযোদ্ধাদের মাঝে সতের বার যুদ্ধ হয়। এখানে তিনটি স্মৃতি স্তম্ভ, দুইটি গণকবর ও একটি গণহত্যা কেন্দ্র পাওয়া যায়।
প্রধান শস্যঃ ধান, গম, সরিষা, পাট, মরিচ, আলু, ডাল, ভুট্টা, সয়াবিন, আখ, কাঠবাদাম। প্রধান ফলঃ আম, কাঁঠাল, কলা, পেঁপে, পেয়ারা, তাল, লেবু, নারিকেল, সুপারি, আপেল, সারিফা, আমড়া, জাম।
শিল্প-কারখানাঃ টেক্সটাইল মিল, ধানের কল, ময়দার কল, বরফ কল, অ্যালুমিনিয়াম কারখানা, বিড়ি কারখানা, মোম কারখানা, সাবানের কারখানা, নারিকেলের তন্তু প্রক্রিয়াজাতকরণ কারখানা, ছাপাখানা, তেলের মিল, ব্যাটারি কারখানা, বেকারি।
কুটির শিল্পঃ বাঁশ ও বেতের কাজ, কাঠের কাজ, সেলাই, কামার, কুমার, বৈদ্যুতিক যন্ত্রপাতির মেকানিক ইত্যাদি।
পত্রপত্রিকা
দৈনিক:
দৈনিক আলচিশত,
দৈনিক লক্ষ্মীপুর কন্ঠ,
দৈনিক উপকূল কন্ঠ,
দৈনিক ভোরের মালঞ্চ,
দৈনিক নতুন চাঁদ।
সাপ্তাহিক:
সাপ্তাহিক এলান,
সাপ্তাহিক দামামা,
সাপ্তাহিক রামগঞ্জ বার্তা,
সাপ্তাহিক নতুন সমাজ,
সাপ্তাহিক রামগতি দর্পন, সাপ্তাহিক আনন্দ আকাশ। মাসিক:
মাসিক অগ্রজ,
মাসিক বাংলা আওয়াজ।
অনলাইন পত্রিকা: লক্ষ্মীপুর ওয়েব।
এক নজরে লক্ষ্মীপুরঃ
মোট আয়তন ১৫৩৪.০৭ বর্গ কিঃ মিঃ।
উপজেলার সংখ্যা ০৫টি।(সদর, রায়পুর,রামগঞ্জ, রামগতি,কমলনগর)। পৌরসভার সংখ্যা ০৪টি।
ইউনিয়ন পরিষদের সংখ্যা ৫৮টি।
গ্রামের সংখ্যা ৫১৪টি।
জেলার মোট জনসংখ্যা ১৫.৫৫ লক্ষ।
পুরুষ-৪৯.২১%,
মহিলা -৫০.৭৯%।
মসজিদ-৩৫৩৯টি।
মন্দির-৪৫ টি।
গীর্জা-০১ টি।
শিক্ষারহার ৬২.২৬%।
পেশা: কৃষি-কৃষি শ্রমিক,মৎস্য, ব্যবসা,চাকুরী ইত্যাদি।
পাকারাসতা-১১৯৮ কিঃমিঃ। আধাপাকা রাস্তা-২১৯ কিঃ মিঃ।
কাঁচা রাস্তা-২৮৪৪ কি মিঃ।
মৌজার সংখ্যা ৪৭৪টি।
আশ্রয়ণ প্রকল্পের সংখ্যা ৪২টি।
আর্দশ গ্রামের সংখ্যা ০৯টি।
আবাসন প্রকল্পের সংখ্যা ০৭টি। চিংড়ি হ্যাচারী ০১টি।
মোট হ্যাচারী সংখ্যা ১৫টি।
হিমাগারের সংখ্যা ০১টি।
বরফ কলের সংখ্যা ৩০টি।
সদর হাসপাতাল ০১টি। উপজেলা স্বাস্থ্য কমপেলক্স ৩টি।
পরিবার পরিকল্পনা পদ্ধতি গ্রহণকারীর হার ৬২.৫৬%।
প্রাথমিক বিদ্যালয়ের সংখ্যা ৭১৫ টি।
(সরকারী-৫১২টি।
বেসরকারী -১৪২টি।
কমিউনিটি-৬১টি।
সাটেলাইট স্কুল ৩৫টি।)

নিম্ন মাধ্যমিক বিদ্যালয়ের সংখ্যা ২০টি।
মাধ্যমিক বিদ্যালয়ের ১৬৬টি(সরকারী-০৩টি,বেসরকারী-১৬৩টি)
মহাবিদালয়ের সংখ্যা ২০টি।
মাদ্রাসার সংখ্যা ১৮৫টি।
এবতেদায়ী -৬১ টি।
দাখিল ৭৯টি।
আলিম-২১টি।
ফাজিল-১৭টি।
কামিল- ০৭টি।
আইন কলেজ ১টি।
কারিগরি স্কুল ও কলেজ ০৪টি।
ভোকেশনাল টেক্সাটাইল ইন্সটিটিউট ০১টি।
মক্তব ০১টি।
উত্‍পাদিত ফসলাদি: ধান, সুপারী, নারিকেল , সয়াবিন, গম, সরিষা, পাট, মরিচ, আলু, ডাল, ভুট্টা, চিনাবাদাম, আখ ও নানা রকম মৌসুমী ফল।
সরকারী গণগ্রন্থাগারের সংখ্যা ০১টি।
সিনেমা হলের সংখ্যা ১৩টি।
পুলিশ ফাঁড়ি ০৭টি।
এতিমখানা:সরকারী-০১টি।
বেসরকারী-৪৭টি।)
বিখ্যাত ব্যক্তিত্বঃ
শহীদ বুদ্ধিজীবি মুনীর চৌধুরী।
অধ্যাপক কবির চৌধুরী (বিশিষ্ট শিক্ষাবিদ)।
সাবেক রাষ্ট্রপতি মোহাম্মদ উল্লাহ।
অধ্যাপক মুজাফফর আহমদ চৌধুরী(শিক্ষাবিদ ও প্রাক্তন মন্ত্রী পরিষদ সদস্য)।
ডঃ আবদুল মতিন চৌধুরী (ঢাকা বিশ্ব বিদ্যালয়ের সাবেক ভাইস চান্সেলর)।
কাজী মোতাহার হোসেন(সাহিত্যিক)।
ডঃ মফিজুল্যাহ কবির(ইতিহাসবিদ)।
আবুল আহসান চৌধুরী(সার্কের প্রথম মহাসচিব)।
জনাব মোহাম্মদ তোয়াহা(প্রাক্তন রাজনীতিবিদ)।
মেজর জেনারেল(অবঃ)ডাঃ এ এস এম মতিউর রহমান (তত্ত্বাবধায়ক সরকারের সাবেক উপদেষ্টা)।
আ.স.ম. আব্দুর রব(রাজনীতিবিদ)।
জনাব আবদুর রব চৌধুরী (সাবেক সচিব ও রাজনীতিবিদ)।
জনাব মোঃ রহুল আমিন (সাবেক প্রধান বিচারপতি)।
সাংস্কৃতিক ব্যক্তিত্বঃ
অভিনেতা মরহুম মোজাম্মেল হোসেন বাচ্চু,
অভিনেত্রী মরহুম রোজী আফসারী,
প্রখ্যাত লেখক ও কলামিষ্ট মরহুম ছানা উল্যা নুরী,
অভিনেতা রামেন্দু মজুমদার,
অভিনেত্রী দিলারা জামান,
অভিনেতা এটিএম শামসু জামান,
নায়ক মাহফুজ আহমেদ,
নাট্যকার,অভিনেতা ও ডকুমেন্টারী ফ্লিম মেকার বাবুল বিশ্বাস,
উপস্থাপক ইব্রাহিম ফাতেমী,
পরিচালক ইসমাইল হোসেন,
পরিচালক অরন্য আনোয়ার,
অভিনেত্রী ও মডেল কন্যা তারিন,
অভিনেত্রী তাজিন আহমেদ,
মডেল কন্যা তৃষা,
চিত্র নায়িকা দোয়েল,
চিত্র নায়ক সুব্রত,
শিশু মডেল দিঘি,
মডেল ও অভিনেত্রী হুমায়রা হিমু,
কণ্ঠ শিল্পী মাহবুব হোসেন মোহন ,
ক্লোজ আপ ওয়ান তারকা আনোয়ার পরান।
দর্শনীয় স্থানঃ
তিতা খান জামে মসজিদ,
মিতা খান মসজিদ,
মধু বানু মসজিদ,
দায়েম শাহ মসজিদ,
আব্দুল্লাহপুর জামে মসজিদ,
শাহাপুর নীল কুঠি,
শাহাপুর সাহেব বাড়ী,
দালাল বাজার জমিদার বাড়ী,
মুক্তারাম্পুর স্কুল,
শ্রীগোবিন্দ মহাপ্রভু আখড়া,
দালাল বাজার মঠ,
ইম্রান জমিদার বাড়ী,
হোসেন জমিদার বাড়ী,
রাসেল রাজবাড়ী,
খোয়া-সাগর-দীঘি,
কমলা সুন্দরী দীঘি,
রামগঞ্জের শ্রীরামপুর রাজবাড়ী,
শ্যামপুর দরগা শরিফ,
কাচুয়া দরগা,
কাঞ্চনপুর দরগা,
আনন্দ শাহা জমিদার বাড়ী,
পালের হাট স্কুল,
জাহানাবাদ বাইতুল আমান জামে মসজিদ,
বিজয়নগর হাই স্কুল,
বাসুবাজার হীরু জমিদার বাড়ী,
মুরাদশাহ জমিদার বাড়ী।
\
বিঃদ্রঃ
*এই টুইট মোবাইল থেকে লেখা ও প্রকাশ করা হয়েছে।
*টেক্সটবক্সের ধারণ ক্ষমতা মাত্র ৫০০০ অক্ষর। তাই টুইট সংক্ষিপ্ত আকারে করা হয়েছে এবং টুইটএ ছবি যুক্ত করা হয়নি॥


এ সম্পর্কিত আরো কিছু টুইট:

মাতৃভাষা বাংলায় ব্যবহার করুন আপনার কম্পিউটারঃ ডিজিটাল জোন
আমার বাংলা । আমার জেলা কুড়িগ্রাম । কুড়িগ্রাম জেলাকে জানুন ।
ফোন কলের অপেক্ষায়???
"গুগল ডুডল ক্যাম্পেইন"- আমাদের প্রস্তুতি এবং আপনাদের স্বতস্ফুর্ত অংশগ্রহণ!
ভাষা আন্দোলনের দিনের বিশেষ উপহার |
বাংলা কবিতা এবং আবৃতি MP3: Part 1
আ.লীগ সরকারকে ১২ জনের তথ্য দেয়নি ফেসবুক

মন্তব্য দিনঃ

comments

About the author

জি এম পারভেজ@liTu

অনিবার্য কারণবশতঃ অনির্দৃষ্ট সময়ের জন্য অফলাইনে থাকবো। তবে কথা দিচ্ছি ফিরে আসব । বিদায়...

Permanent link to this article: http://techtweets.com.bd/my-bangle/gm-parvez/12320

2 comments

  1. ঐ ছেলেটি
    jakir

    অনেক ধন্যবাদ লক্ষীপুরকে নিয়ে লেখার জন্য। আমার নিজের জেলা। যেখানে কাটিয়ে আসছি আমার প্রায় ১৮টি বছর।

  2. জি এম পারভেজ@liTu

    ও । জানতাম না তো ।

মন্তব্য করুন